প্রচ্ছদ

ছাতকে ‘বন্ধুকযুদ্ধে’ ডাকাত সর্দার নিহত

25 November 2019, 17:10

গোলাপগঞ্জের ডাক

ছাতক প্রতিনিধিঃ  সুনামগঞ্জের ছাতকে পুলিশের সঙ্গে ‘বন্ধুকযুদ্ধে’ এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন।

রোববার (২৪ নভেম্বর) রাতে উপজেলার দক্ষিণ খুরমা ইউনিয়নের ভূইগাওঁ এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশের দাবি নিহত ব্যক্তি লকন্দর আলী (৪০) একটি ডাকাত দলের সর্দার এবং তার বিরুদ্ধে ১২টি ডাকাতি মামলা রয়েছে।

নিহত লকন্দর আলী সিংচাপইর ইউনিয়নের জিয়াপুর- হবিপুর গ্রামের কলমদর আলীর ছেলে।

এ ব্যাপার ছাতক থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোস্তফা কামাল জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে একদল পুলিশ উপজেলার বোকার ভাঙ্গা গ্রামে অভিযান চালায়। ভোরে আটক ১২টি ডাকাতি মামলা আসামি লক্ষনধর আলী লিপসনের স্বীকারোক্তি মতে তাকে নিয়ে অস্ত্র উদ্ধারে বের হয়। ছাতক শহরের কাছে বোকার ভাঙ্গা ব্রিজের কাছে গেলে হঠাৎ তার সহযোগীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছুঁড়ে। পুলিশ অতর্কিত হামলায় অপ্রস্তুত থাকায় লিপসন পালানোর চেষ্টা করে। এসময় আত্মরক্ষার জন্য পুলিশও গুলি ছুঁড়ে। উভয় পক্ষের বন্দুকযুদ্ধে ডাকাত লিপসন নিহত হয়, আহত হন ৬ পুলিশ সদস্য।

সুনামগঞ্জের পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মিজানুর রহমান মিজান বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, নিহত লিপসন ডাকাত দলের সদস্য। তার বিরুদ্ধে একাধিক মামলা রয়েছে। তাকে ছাড়িয়ে নিতে তার সহযোগীরা গুলি চালায়। তাদের গুলিতে ৬ পুলিশ সদস্যও আহত হয়েছেন। নিহতের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য সুনামগঞ্জ সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

  •  
  •  

সর্বশেষ খবর